পিনড ট্যাব - আপনার প্রিয় ওয়েবসাইটগুলো এক ক্লিকে খুলুন

পিনড ট্যাবের মাধ্যমে আপনি ফেসবুক, জিমেইল, টুইটারের মত আপনার পছন্দের ওয়েব অ্যাপগুলো সর্বদা খোলা রাখতে পারবেন এবং এক ক্লিকেই চালু হবে। পিনড ট্যাবগুলো ছোট; অসাবধানতাবশত এদের বন্ধ হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা নেই এবং ফায়ারফক্স চালু হওয়ার সময় এরা নিজে থেকেই খুলে যায়। এই নিবন্ধে পিনড ট্যাবের বৈশিষ্টগুলোর উপর আলোকপাত করা হয়েছে এবং দেখানো হয়েছে আপনি কিভাবে এগুলো ব্যবহার করবেন।

পিনড ট্যাব কেন ব্যবহার করবেন?

ইন্টারনেটে এখন এমন অনেক ওয়েবসাইট আছে যেগুলো আমরা স্থির পাতার মত ব্যবহার না করে প্রোগ্রামের মত ব্যবহার করি। ফেসবুক বা জিমেইলের মত জনপ্রিয় সাইটগুলো অনেকটা এভাবে কাজ করে – তারা যখন কোন কাজ সম্পূর্ন করে (অথবা কোন প্রক্রিয়াধীন কাজ এড়িয়ে যায়), তখন তারা তাদের নিজেদের হালনাগাদ করে এবং তাদের পরিবর্তন সম্পর্কে আপনাদের জানায়। পিনড ট্যাবের ম্যাধ্যমে আপনি যেকোন ওয়েবসাইট ট্যাব স্ট্রিপের বাম পাশে পিন করে রাখতে পারবেন যাতে তারা সব সময় আপনার নজরে থাকে।

App Tab example App Tab example Mac
Pin tab 29 - Win Pin tab 29 - Mac Pin tab 29 - Lin

কিভাবে ট্যাব পিনড করবেন?

পিনড ট্যাব কতটা উপকারী তা দেখার সব থেকে সহজ উপায় হল একটি পিন ট্যাব তৈরী করা

  • যে ট্যাবটি পিন করতে চান তার উপর রাইট ক্লিককন্ট্রোল ক্লিক করে মেনু থেকে Pin Tab নির্বাচন করুন।


ব্যবহার করে দেখুনঃ আপনার পছন্দের একটি ওয়েবসাইট (ইমেইল, ইন্টারনেট রেডিও, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম প্রভৃতি) পিনড ট্যাবে পরিবর্তনের চেষ্টা করে দেখুন। এগুলো তৈরি করা সহজ এবং এরা বেশ কার্যকারী।

কিভাবে একটি পিনড ট্যাব বাদ দেবেন?

একটি পিনড ট্যাবকে রেগুলার ট্যাবে ফেরত নেওয়া খুবই সহজ

  • পিনড ট্যাবের উপর রাইট ক্লিককন্ট্রোল ক্লিক করে মেনু থেকে Unpin Tab নির্বাচন করুন।

সাধারন ট্যাবের সাথে পিনড ট্যাবের পার্থক্য কী?

  • পিনড ট্যাবগুলো ছোট – এতে সাইটের শিরোনামের পরিবর্তে কেবল আইকন দেখায় এবং এরা ট্যাব স্ট্রিপের বাম পাশে থাকে।
  • পিনড ট্যাব বন্ধ করার কোন বাটন না থাকায় অসাবধানতাবশত ট্যাব বন্ধ হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা নেই।
    • তবে এদের উপর রাইট ক্লিককন্ট্রোল ক্লিক করে মেনু থেকে Close Tab নির্বাচনের মাধ্যমে এদের বন্ধ করা যায়।
  • ট্যাবে কোন পরিবর্তন হলে নীল রং এর সংকেতের মাধ্যমে পিনড ট্যাব তা আপনার নজরে আনে।
    • উদাহরণস্বরূপ, জিমেইল যদি আপনার পিনড ট্যাব হিসেবে থাকে আর ধরুন আপনি অন্য কোন ট্যাবে কাজ করছেন এমন সময় যদি জিমেইলে নতুন কোন মেইল আসে তবে জিমেইল ট্যাবটি উজ্জল হয়ে উঠবে।
  • আপনার তৈরী করা পিনড ট্যাবগুলো ফায়ারফক্স একবার বন্ধ করে আবার চালু করার পরও পূর্বের অবস্থায় থাকবে।
  • অন্যান্য ওয়েবসাইট এর লিংকগুলো নতুন ট্যাবে খুলবে যেন পিনড ট্যাবের কোন পরিবর্তন না হয়।
    • ফেসবুকের মত অনেক ওয়েব অ্যাপস এরই মধ্যে এটি করে থাকে, যেসব ওয়েবসাইট এটি করে না পিনড ট্যাবে থাকলে তারাও এটি করবে।

ট্যাব গ্রুপে পিনড ট্যাব

ট্যাব গ্রুপ (প্যানারোমা নামেও পরিচিত) হল ট্যাব সাজানো এবং শ্রেণীবদ্ধ করার অসাধারন একটি উপায়। গ্রুপ ট্যাব প্রদর্শনে আপনার পিনড ট্যাবগুলো প্রতিটি গ্রুপের ডান পাশে তাদের সাইটের আইকন দ্বারা পরিবেশিত হয়।

কোন সমস্যা হচ্ছে?

  • ফায়ারফক্স পুনরায় চালু করার পর যদি পিনড ট্যাবগুলো না থাকে, তবে Troubleshooting Session Restore দেখুন।

অ্যাপ ট্যাবের মাধ্যমে আপনি ফেসবুক, জিমেইল, টুইটারের মত আপনার পছন্দের ওয়েব অ্যাপগুলো সর্বদা খোলা রাখতে পারবেন এবং এক ক্লিকেই চালু হবে। অ্যাপ ট্যাবগুলো ছোট; অসাবধানতাবশত এদের বন্ধ হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা নেই এবং ফায়ারফক্স চালু হওয়ার সময় এরা নিজে থেকেই খুলে যায়। এই নিবন্ধে অ্যাপ ট্যাবের বৈশিষ্টগুলোর উপর আলোকপাত করা হয়েছে এবং দেখানো হয়েছে আপনি কিভাবে এগুলো ব্যবহার করবেন।

দ্রষ্টব্যঃ ফায়ারফক্সের সর্বশেষ সংস্করণে অ্যাপ ট্যাবকে পিনড ট্যাব বলা হয়।

অ্যাপ ট্যাব কেন ব্যবহার করবেন?

অ্যাপ ট্যাবের মাধ্যমে আপনি ফেসবুক, জিমেইল, টুইটারের মত আপনার পছন্দের ওয়েব অ্যাপগুলো সর্বদা খোলা রাখতে পারবেন এবং এক ক্লিকেই চালু হবে। অ্যাপ ট্যাবগুলো ছোট; অসাবধানতাবশত এদের বন্ধ হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা নেই এবং ফায়ারফক্স চালু হওয়ার সময় এরা নিজে থেকেই খুলে যায়। এই নিবন্ধে অ্যাপ ট্যাবের বৈশিষ্টগুলোর উপর আলোকপাত করা হয়েছে এবং দেখানো হয়েছে আপনি কিভাবে এগুলো ব্যবহার করবেন। App Tab example

কিভাবে অ্যাপ ট্যাব তৈরি করবেন?

অ্যাপ ট্যাব কতটা উপকারী তা দেখার সব থেকে সহজ উপায় হল একটি অ্যাপ ট্যাব তৈরী করা

  • যে ট্যাবটিকে অ্যাপ ট্যাব করতে চান তার উপর রাইট ক্লিককন্ট্রোল ক্লিক করে মেনু থেকে Pin Tab নির্বাচন করুন।


ব্যবহার করে দেখুনঃ আপনার পছন্দের একটি ওয়েবসাইট (ইমেইল, ইন্টারনেট রেডিও, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম) অ্যাপ ট্যাবে পরিবর্তনের চেষ্টা করে দেখুন। এগুলো তৈরি করা সহজ এবং এরা বেশ কার্যকরী।

কিভাবে একটি অ্যাপ ট্যাব বাদ দেবেন?

একটি অ্যাপ ট্যাবকে রেগুলার ট্যাবে ফেরত নেওয়া খুবই সহজ

  • অ্যাপ ট্যাবের উপর রাইট ক্লিককন্ট্রোল ক্লিক করে মেনু থেকে Unpin Tab নির্বাচন করুন।

সাধারন ট্যাবের সাথে অ্যাপ ট্যাবের পার্থক্য কী?

  • অ্যাপ ট্যাবগুলো ছোট – এতে সাইটের শিরোনামের পরিবর্তে কেবল আইকন দেখায় এবং এরা ট্যাব স্ট্রিপের বাম পাশে থাকে।
  • অ্যাপ ট্যাব বন্ধ করার কোন বাটন না থাকায় অসাবধানতাবশত ট্যাব বন্ধ হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা নেই।
    • তবে এদের উপর রাইট ক্লিককন্ট্রোল ক্লিক করে মেনু থেকে Close Tab নির্বাচনের মাধ্যমে এদের বন্ধ করা যায়।
  • ট্যাবে কোন পরিবর্তন হলে নীল রং এর সংকেতের মাধ্যমে অ্যাপ ট্যাব তা আপনার নজরে আনে।
    • উদাহরণস্বরূপ, জিমেইল যদি আপনার অ্যাপ ট্যাব হিসেবে থাকে আর ধরুন আপনি অন্য কোন ট্যাবে কাজ করছেন এমন সময় যদি জিমেইলে নতুন কোন মেইল আসে তবে জিমেইল ট্যাবটি উজ্জল হয়ে উঠবে।
  • আপনার তৈরী করা অ্যাপ ট্যাবগুলো ফায়ারফক্স একবার বন্ধ করে আবার চালু করার পরও পূর্বের অবস্থায় থাকবে।
  • অন্যান্য ওয়েবসাইট এর লিংকগুলো নতুন ট্যাবে খুলবে যেন অ্যাপ ট্যাবের কোন পরিবর্তন না হয়।
    • ফেসবুকের মত অনেক ওয়েব এপস এরই মধ্যে এটি করে থাকে, যেসব ওয়েবসাইট এটি করে না অ্যাপ ট্যাবে থাকলে তারাও এটি করবে।

ট্যাব গ্রুপে অ্যাপ ট্যাব

ট্যাব গ্রুপ (প্যানারোমা নামেও পরিচিত) হল ট্যাব সাজানো এবং শ্রেণীবদ্ধ করার অসাধারন একটি উপায়। গ্রুপ ট্যাব প্রদর্শনে আপনার অ্যাপ ট্যাবগুলো প্রতিটি গ্রুপের ডান পাশে তাদের সাইটের আইকন দ্বারা পরিবেশিত হয়।

কোন সমস্যা হচ্ছে?

  • ফায়ারফক্স পুনরায় চালু করার পর যদি অ্যাপ ট্যাবগুলো না থাকে, তবে Troubleshooting Session Restore দেখুন।

এই নিবন্ধটি শেয়ার করুনঃ আপনি এই http://mzl.la/KCAdIy লিংকটি ব্যবহার করে সহজেই নিবন্ধটি শেয়ার করতে পারবেন। এটা স্বয়ংক্রিয়ভাবে অপারেটিং সিস্টেম এবং ভাষা অনুযায়ি নির্দেশনা দেখাবে।

এই প্রবন্ধটি কি সহায়তাকারী? দয়া করে অপেক্ষা করুন...

These fine people helped write this article: AshfaqHossain. You can help too - find out how.